সুখ কি তবে বিমূর্ত্ততা !

সুচন্দ্রা হালদার

আজকের এই চূড়ান্ত ব্যস্ততার মাঝে আমাদের জীবন থেকে আবেগগুলো কেমন যেন হারিয়ে যেতে বসেছে….. একসাথে এক ছাদের তলায় বাস করেও দূরত্বটা বোধহয় ঠেকানো যাচ্ছে না । প্রতিটা মানুষই যেন নিজস্ব একটা গন্ডিতে আবদ্ধ । অথচ আলটিমেট চাওয়া কিন্তু সবার একটাই….”সুখ” !… শুধু চাওয়া পাওয়া র ধারণাটা ব্যক্তিভেদে আলাদা আলাদা হয়ে যায়….

SH

                  দুটো মন…..আর তাদের ছুঁয়ে থাকার গল্প।
সবটাই কি সত্যি?
থাক্ না….. তাতে মিথ্যেও অল্পস্বল্প!
আজ আর শুধুই বাঁচা মরার গল্প না।
রইল না হয়….. একটু মিছে কল্পনা!

না ছোঁয়া সব অনুভুতিতেই উপস্থিতি খোঁজা তার।
লেখার পাতায়…..আঁকার খাতায়……
ডাক দিয়ে যাই বারবার।
একলা দুপুরে,মনের মুকুরে,কাঁদায় আমার জীর্ণতা।
ব্যস্ত তুই হাজার কাজে…..
আমার ই শুধু শূণ্যতা!
এক আকাশ মেঘের সাথে গল্প করি রোজ একা।
সঙ্গী হতে কেউ রাজি নয়
শুধুই ঘড়ির কাঁটা দেখা।
মেঘ আসে… বৃষ্টি পড়ে….ভাসি স্মৃতির দরিয়ায়….
ফেলে আসা স্বপ্নেরা সব….
ঘা দেয় মনের কিনারায়।
চাওয়া-পাওয়ার হিসেব নিকেশ,
কখন যেন আনমনে…..
আলোছায়া হয়ে আল্পনা আঁকে
ভাবনার এই প্রাঙ্গণে।
তরি আমার টলোমলো
হৃদয় ভরা জোয়ারে…
তোর সে বাঁশির সুর শুনি আজ
  নীরবতার গভীরে!
জানিস না তুই এসব কিছুই,
তুই অচেতন রাতঘুমে….
চোখের জলের বৃষ্টি নামে…
একলা থাকার মরশুমে!
রাতপোশাকে লুকিয়ে থাকা আবেগ যদি সদলবলে
হঠাৎ এসে ঝাঁপিয়ে পড়ে…..
ভাসাই সে সব সব চোখের জলে।

বালিশ ভেজে…..
রাতের সাথে পাল্লা দিয়ে….
বাড়তে থাকে বিষন্নতা……
হৃদয় বলে……
সুখ বলে যা খুঁজিস রে তুই,
আসলে তা…. বিমূর্ত্ততা !

———–…………….—————

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: